জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের ৪১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে রিজভী

জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের ৪১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে রিজভী

আমারদেশ প্রতিদিন ডেস্ক: বেগমগঞ্জে নারী নির্যাতনের কথা উল্লেখ করে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, বর্তমানে যে অবস্থা চলছে পাকিস্তান আমলেও ২৫ মার্চের আগে এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে কিনা আমার জানা নাই।

তিনি বলেন, আজকে রাষ্ট্র যখন এত অমানবিক এবং আমরা রাষ্ট্রের যখন এই নিষ্ঠুর চরিত্র দেখি তখন জনপদের পরে জনপদে কেন এরকম অপকর্ম দেখা যাবে না।

মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসক্লাবে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের ৪১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে ‘শহীদ জিয়ার রাজনৈতিক দর্শন, ধর্মীয় মূল্যবোধ ও আজকের প্রেক্ষাপট’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, আমরা বিপন্ন আমরা রাস্তাঘাটে চলতে ভয় পাচ্ছি, এমনকি মেয়ে মানুষদের নিয়ে নিজের ঘরে থাকতে ভয় পাচ্ছি। এমসি কলেজের এই নৃশংস ঘটনার পরে আবার সেই বেগমগঞ্জে নারী নির্যাতনের ঘটনা ঘটলো। আর আমাদের মন্ত্রীরা কী বলছেন? স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলছেন, বিশ্বের দিকে তাকিয়ে দেখেন কোথায় ধর্ষণ নাই আর তথ্যমন্ত্রী বলছেন, বিএনপি আশ্রয়-প্রশ্রয় ধর্ষণ হচ্ছে।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ একটি রাজনৈতিক দল। এই ১২ বছরে দলটি লুটেরা, টাকা পাচারকারী ও নারীদের সম্ভ্রম হরণকারীদের আশ্রয়-প্রশ্রয়দাতা হিসেবে পরিচিত হয়েছেন।

রিজভী বলেন, আওয়ামী লীগের সময়ে এমন প্রশাসন তৈরি হয়েছে যে নির্যাতিত মানুষ সেখানে গিয়ে কমপ্লেইন করতে পারে না। দুষ্কিতিকারীরা এতই ভয়ঙ্কর যে বেগমগঞ্জের ওই নারী অভিযোগ করার পর্যন্ত সাহস পায়নি। ভয়ে নিজের এলাকা ছেড়ে চলে গেছেন। অথচ কালকে আমরা একটা মিছিল করি দেখবেন পুলিশ পেছন থেকে টপাটপ করে বিএনপির নেতাকর্মীকে কিভাবে গ্রেফতার করে নিয়ে যায়। এখানে তারা দারুণ নৈপুণ্য ও দক্ষতা দেখিয়েছে। বিরোধী দলকে দমন করার জন্য ক্রসফায়ার দেয়ার জন্য এত দক্ষ যে এদের তুলনা হয় না। কিন্তু সাধারন মানুষরা আক্রান্ত হওয়ার পর প্রশাসনের কাছে যেতে পারছে না। কারণ এই প্রশাসন দিয়ে মত প্রকাশের স্বাধীনতা বন্ধ করা হয়েছে। এই প্রশাসন দিয়ে বিরোধী দলকে দমন পীড়ন চালানো হয়েছে।

ওলামা দলের আহ্বায়ক পিন্সিপাল মাওঃ শাহ্ নেছারুল হকের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব প্রিন্সিপাল মাওঃ নজরুল ইসলাম তালুকদারের সঞ্চলনায় আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম, বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরফত আলী সপু প্রমুখ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2020
Design BY Soft-Mack